top of page

গৌতম ঘোষ আসন্ন টলিউড মুভি 'হেমন্তের অপরাহ্ন'র পোস্টার উন্মোচন করলেন




কলকাতা, ৮ মে, ২০২৪: হেমন্তের অপরাহ্ন, পুরস্কার বিজয়ী পরিচালক অশোক বিশ্বনাথনের একটি নতুন চলচ্চিত্র। যেখানে প্রেম, ক্ষতি এবং শিল্পের বিবর্তনের মাধ্যমে দর্শকদের একটি মর্মান্তিক যাত্রায় নিয়ে যায়। আজ ICCR, কলকাতায় গ্র্যান্ড পোস্টার লঞ্চ অনুষ্ঠান সম্পন্ন হল। পোস্টারটি উন্মোচন করলেন প্রখ্যাত চলচ্চিত্র নির্মাতা শ্রী গৌতম ঘোষ। উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শ্রী অশোক বিশ্বনাথন, পরিচালক; শ্রী অমিত আগরওয়াল, প্রযোজক এবং হেমন্তের অপরাহ্ন- র তারকা কাস্ট। ফিল্মটি কোভিড মহামারী চলাকালীন জীবনের অনিশ্চয়তা, ইউক্রেন এবং মধ্যপ্রাচ্যের যুদ্ধের কারণে উদ্বেগ সহ বিশ্বে ঘটে চলা সমসাময়িক সময়ের একটি গতিশীল এবং নাটকীয় অনুসন্ধান।

এই উপলক্ষে শ্রী অশোক বিশ্বনাথন, হেমন্তের অপরাহ্নর পরিচালক ও প্রযোজক বলেছেন, “চলচ্চিত্রটি, কলকাতা এবং তার আশেপাশে শ্যুট করা হয়েছে, বর্তমান কোভিড সময়ে সেট করা হয়েছে। এই ছবি থিয়েটার জগতের নেপথ্যের দৃশ্য এবং শিল্পীদের সংগ্রামকে অন্বেষণ করে। প্লটটি অন্বেষণ করার চেষ্টা করে যে কীভাবে মানুষ চলচ্চিত্র এবং থিয়েটারে পর্দার পিছনের ঘটনাগুলির সাথে তাদের সম্পর্কগুলিকে একটি আদল দিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। উদ্বেগ এবং বিষণ্ণতা সাম্প্রতিক সময়ে আত্মহত্যার দিকে প্ররোচিত করাও এই ছবির একটি প্রধান বিষয়। অবশেষে, আমি আনন্দিত যে আমি বিখ্যাত চলচ্চিত্র প্রযোজক অমিত আগরওয়ালের সাথে সহযোগিতা করেছি, যিনি বিভিন্ন ধরণের ভাষা নির্বিশেষে ভালো সিনেমা দর্শকদের কাছে মেলে ধরার ক্ষেত্রে জনপ্রিয়।"

মিডিয়ার সঙ্গে আলাপচারিতায় হেমন্তের অপরাহ্নর প্রযোজক অমিত আগরওয়াল বলেন, “যদিও চলচ্চিত্রটি একজন বয়স্ক বিধবার নিঃসঙ্গতার যন্ত্রণা নিয়ে কাজ করে যা অতীতেও কয়েকটি ছবিতে চিত্রিত হয়েছিল, কিন্তু এবার অশোক বিশ্বনাথন আকর্ষণীয়ভাবে লুইগি পিরানডেলোর একটি নাটককে সমান্তরালভাবে ব্যবহার করেছেন। ছবির প্রেক্ষাপট, এক বিধবার জীবনের একটি নতুন কর্মজীবন যা তাকে মহামারী সংকট, ইউক্রেন যুদ্ধ, একজন মহিলা সহকর্মীর প্রতি তার আকর্ষণ এবং অজানা কাল্পনিক নারীদের মধ্যে তাড়িত করে। আমি অবশ্যই বলব অশোক দা একাধিক উপাদান নিয়ে একটি ভিন্ন চলচ্চিত্র তৈরি করেছেন যা কেবল তাঁর চলচ্চিত্রের দর্শকই নয়, বাংলা চলচ্চিত্রের দর্শকদেরও যথেষ্ট আলোড়িত করবে।

অমিত এর আগে ‘এম. এস ধোনি- দ্য আনটোল্ড স্টোরি' এবং কঙ্গনা রানাউত অভিনীত 'সিমরান'-এর মতো চলচ্চিত্র নির্মাণ করেছেন। তিনি প্রখ্যাত চলচ্চিত্র নির্মাতা গৌতম ঘোষ পরিচালিত 'রাহগির' নামে একটি ছবিও প্রযোজনা করেছেন, যা এখনও মুক্তি পায়নি। হেমন্তের অপরাহ্নর সঙ্গে তিনি আত্মিকভাবে জড়িয়ে গেছেন এবং তিনি রোমাঞ্চিত যে তিনি আবারও একটি ভিন্ন ধরনের চলচ্চিত্র বাঙালি দর্শকদের উপস্থাপন করছেন। তিনি বিশ্বাস করেন যে এটি দর্শকদের পছন্দ হবে।

চলচ্চিত্রটিতে অভিনয় করেছেন আনুশা বিশ্বনাথন, ঋতব্রত মুখোপাধ্যায় এবং কেন্দ্রীয় ভূমিকায় রয়েছেন সত্যপ্রিয় মুখোপাধ্যায়। বলিষ্ঠ পার্শ্ব চরিত্রে রয়েছেন বিদীপ্তা চক্রবর্তী। ছবিতে লৌকিক গানের সুর করেছেন গৌরব চ্যাটার্জি। সিনেমাটোগ্রাফি করেছেন জয়দীপ ভৌমিক এবং সম্পাদনা করেছেন জাতীয় পুরস্কার বিজয়ী অর্ঘ্যকমল মিত্র। হেমন্তের অপরাহ্ন আদর্শ টেলিমিডিয়া এবং এভি প্রোডাকশনের পক্ষে অমিত আগরওয়াল এবং অশোক বিশ্বনাথন প্রযোজনা করেছেন। চলতি জুনে ছবিটি মুক্তি পাচ্ছে।


Kommentare

Mit 0 von 5 Sternen bewertet.
Noch keine Ratings

Rating hinzufügen

Top Stories

bottom of page