top of page

হঠাৎ দেখা। শুভেচ্ছা বিনিময়, বৈঠক সেরে একে অপরকে আমন্ত্রণ


১৩ সেপ্টেম্বর: দুবাইয়ের বিমানবন্দরে হঠাৎ দেখা। সোশ্যাল মিডিয়ায় নিজেই জানালেন। পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে দুবাই বিমানবন্দরের লাউঞ্জে দেখে এগিয়ে এসে আলাপচারিতায় আগ্রহ দেখালেন শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট রনিল বিক্রমাসিঙ্ঘে। হাতজোড় করে একে অপরের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন তাঁরা। তৈরি হল এক আশ্চর্য মুহূর্ত। চলল কিছুক্ষণের বৈঠক। শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট মুখ্যমন্ত্রীকে ‘‌দিদি’‌ বলেই সম্মান জানিয়েছেন বলে খবর।

এই সাক্ষাৎ–পর্ব এবং বৈঠকে বেশ আনন্দিত মুখ্যমন্ত্রী। এমন ঘটনা যে ঘটবে তা তিনি ভাবতেও পারেননি। তবে একটা ব্যাপারও ঘটেছে । বিক্রমসিঙ্ঘে আচমকাই মমতাকে জিজ্ঞাসা করেন, ‘‘আমি কি আপনাকে একটা প্রশ্ন করতে পারি?’’ মমতা উত্তর দেন, ‘‘হ্যাঁ, অবশ্যই।’’ এর পরেই বিক্রমসিঙ্ঘের প্রশ্ন, ‘‘আপনিই কি বিরোধী জোটকে নেতৃত্ব দিতে চলেছেন?’’ উত্তরে ‘ওহ্‌ মাই গড’ বলে হাসতে দেখা যায় তাঁকে। মুখ্যমন্ত্রী ফেসবুক পোস্টে জানিয়েছেন, শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্টকে বেঙ্গল গ্লোবাল বিজনেস সামিটে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন তিনি৷ অপর দিকে শ্রীলঙ্কায় যাওয়ার জন্য মমতাকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট৷ বিশ্ব বঙ্গ বাণিজ্য সম্মেলনে আসার ইচ্ছাপ্রকাশ করেন শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট। একসঙ্গে ছবিও তুলেছেন তাঁরা। যা এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে। সব মিলিয়ে সাক্ষাতের এক পর্যায়ে নতুন দিকের উন্মোচন হয়েছে, সে কথা বলেছেন মুখ্যমন্ত্রী৷

বুধবার ভারতীয় সময় সকাল সাড়ে ৯টার কিছু ক্ষণ আগে দুবাই থেকে স্পেনের রাজধানী মাদ্রিদের পথে রওনা দেয় মমতার বিমান। বিকেলের পরে মাদ্রিদ পৌঁছবেন মুখ্যমন্ত্রী। বৃহস্পতিবার তাঁর সঙ্গে স্পেনের লা লিগার প্রেসিডেন্ট হাভিয়ার তেভাজের বৈঠক হওয়ার কথা রয়েছে৷ সেখানে থাকার কথা সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় ও বাংলার বিভিন্ন ফুটবল ক্লাবের কর্তাদের৷ লা লিগার সঙ্গে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের একটি সমঝোতাপত্র (মউ) সাক্ষরিত হওয়ার কথা। পরে বার্সেলোনা, দুবাই হয়ে কলকাতা ফিরবেন মুখ্যমন্ত্রী।


Comentarios

Obtuvo 0 de 5 estrellas.
Aún no hay calificaciones

Agrega una calificación

Top Stories

bottom of page