top of page

ইন্দো- বাংলাদেশের শিল্পীদের যৌথ উদ্যোগে লখনৌ-তে প্রদর্শিত হল "ক্যাথারসিস"


কলকাতা, ২০মার্চ: ১২ই মার্চ, লখনৌ-এর কালস্রোত আর্ট গ্যালারিতে শুরু হওয়া একটি শিল্প প্রদর্শনী "ক্যাথারসিস"-এ সারা দেশ ও বাংলাদেশের ১৮ জন শিল্পী তাদের রঙ-তুলির মাধ্যমে জীবনের আবেগকে সুন্দরভাবে স্কেচ করেছিলেন।


পেইন্টিং, ফটোগ্রাফ এবং পারফর্মিং আর্ট পিস সহ প্রায় ৮০ টি শিল্পকর্ম ছিল প্রদর্শনীর অংশ। মিক্স মিডিয়া, অ্যাক্রিলিক, তেল, জলের রং, টেম্প্রার রঙ এবং কাগজ ও ক্যানভাসে কলম ও কোলাজ এবং ফটোগ্রাফের সাহায্যে আঁকা চিত্রগুলি সেখানে প্রদর্শিত হয়।


আর্ট ফ্যামিলি কর্তৃক আয়োজিত প্রদর্শনীটি ১৭ই মার্চ পর্যন্ত উন্মুক্ত ছিল। প্রদর্শনীতে ছিল ব্যঙ্গচিত্র, বিমূর্ত চিত্রকর্ম, কম্পোজিশন, ল্যান্ডস্কেপ এবং প্রতিকৃতি।


প্রদর্শনীতে প্রদর্শিত হয়েছিল ডঃ খোকন রাউতের আঁকা চারটি ছবি, যা যথেষ্ট প্রশংসিত হয়েছিল আর্ট গ্যালারিতে উপস্থিত দর্শকদের মধ্যে।


রাজিদ শিকদার দ্বারা সংকলিত এই প্রদর্শনীতে বাংলাদেশের শিল্পীদের তরফে অংশগ্রহণ করেছিলেন নাজমা আখতার, রাশিদ সুখন, তসলিমা আখতার বাঁধন, আবু কালাম শামসুদ্দিন। অপরদিকে ভারতীয় শিল্পীদের তরফে ছিলেন জয়দীপ ভট্টাচার্য্য (ত্রিপুরা), এস এ জাফর (আলিগড়), বিপ্লব দত্ত (নিউ দিল্লি), পলাশ পাল (কলকাতা), মনীষা দোহরা (আগ্রা), হরপ্রসাদ চ্যাটার্জী (কলকাতা), খোকন রাউত (কলকাতা), চঞ্চল সিংহ রাই (আন্দামান ও নিকোবর), হিরন্ময় পটনায়ক (নিউ দিল্লি), তপন মিত্র (কলকাতা), শুভ্র কুমার চ্যাটার্জী (কলকাতা), মৈত্রী নন্দী (নিউ দিল্লি), সঞ্জয় রাজ(লখনৌ) এবং রাজিদ শিকদার নিজে।


ভারত ও বাংলাদেশের যৌথ সমন্বয়ে এই ধরনের প্রচেষ্টা দুই দেশের মধ্যে বন্ধনকে আরও দৃঢ় করবে এমনটাই বিশ্বাস।




Edited By

Swarnali Goswami

Comments

Rated 0 out of 5 stars.
No ratings yet

Add a rating

Top Stories

bottom of page